রবিবার, জুন ১৬, ২০২৪

চরিত্রকে সম্মান জানিয়ে সবকিছু করতে প্রস্তুত

গত বছর ভেনিস উৎসবে সেরা সিনেমার পুরস্কার জিতে নেয় ইয়োর্গস লান্থিমোসের ‘পুওর থিংস’। তবে পুরস্কার পাওয়ার আগে উৎসবে প্রিমিয়ার হওয়ার পর থেকেই ছবিটির প্রশংসায় পঞ্চমুখ ছিলেন সমালোচকেরা। পরে গত ডিসেম্বরে প্রেক্ষাগৃহে মুক্তির পর থেকে ছবিটি নিয়ে আলোচনা আরও বাড়তে থাকে।

আলোচনার অন্যতম বিষয় ছিল ‘পুওর থিংস’-এ এমা স্টোনের অভিনয়। এতে অস্কারজয়ীর অভিনয়ের যেমন প্রশংসা হয়েছে, তেমন পর্দায় তাঁর নগ্ন দৃশ্যে অভিনয় চমকে দিয়েছে অনেককেই। সম্প্রতি বিবিসি রেডিও ফোরে দেওয়া সাক্ষাৎকারে এ প্রসঙ্গে কথা বলেছেন এমা।

গত বছরের সেরা ছবির প্রায় সব তালিকাতেই ওপরের দিকে ছিল ‘পুওর থিংস’। অনেকেই ভবিষ্যদ্বাণী করেছেন, এবারের অস্কারে সেরা অভিনেত্রীর পুরস্কার বাগাবেন এমা। যার লক্ষণও দেখা যাচ্ছে। চলতি বছর অনুষ্ঠিত বড় দুই পুরস্কার গোল্ডেন গ্লোব ও ক্রিটিকস চয়েসে এ ছবির জন্য সেরা অভিনেত্রীর পুরস্কার পেয়েছেন এমা।

সম্প্রতি বিবিসি রেডিও ফোরকে এমা বলেন, ‘ছবিতে বেলা চরিত্রটি নানা অভিজ্ঞতার মধ্য দিয়ে যায়। যে অভিজ্ঞতার মধ্যে অবশ্যই যৌনতার অভিজ্ঞতাও ছিল; এটা অবশ্যই তার জন্য, সব মানুষের জন্যই বড় অভিজ্ঞতা।’ আগে পর্দায় পুরোপুরি নগ্ন দৃশ্যে অভিনয় করতে দেখা যায়নি এমাকে। তাই এটা তাঁর ভক্ত-দর্শক তো বটেই, সমালোচকদের জন্যও ছিল বড় চমক।

তবে অভিনেত্রী মনে করেন, বেলা চরিত্রটি পর্দায় ফুটিয়ে তুলতে এটা জরুরি ছিল। তিনি বিষয়টি ব্যাখ্যা করে বলেন, ‘চরিত্রটি জীবনের অনেক দিক আবিষ্কার করে। এর মধ্যে খাবার, দর্শন, ভ্রমণ, নাচ যেমন ছিল, তেমনি ছিল যৌনতাও।

বেলা সম্পূর্ণ মুক্ত একজন মানুষ, নিজের শরীর নিয়ে যার লজ্জা নেই। আমি এমন একজন যে সব সময় পর্দায় নগ্ন হতে চাইব না, তবে অবশ্যই নিজের অভিনীত চরিত্রটিকে সম্মান জানাতে চাই। চরিত্রের জন্য যা দরকার করতে চাই।’

ভেনিস উৎসবে সেরার পুরস্কার জেতার পর ছবিটিতে এমার অভিনয়ের প্রশংসায় পঞ্চমুখ হয়েছিলেন পরিচালক ইয়োর্গস লান্থিমোসও। তিনি তখন বলেছিলেন, ‘নগ্নতা এ সিনেমার জন্য খুবই প্রয়োজনীয় ছিল। আমরা আত্মবিশ্বাসী ছিলাম, এমাকে নিয়ে কোনো সমস্যা হবে না। ওকে এ সম্পর্কে বলার পর উত্তর দেয়, পর্দায় বেলার জন্য সবকিছু করতে সে প্রস্তুত।’

সর্বাধিক পঠিত

আরও

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here